আজ : বৃহস্পতিবার, ১৩ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩০শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অপহরণের ২০ দিন পর স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করলো পটুয়াখালী র‌্যাব


প্রতিবেদক
জনতার মেইল.ডটকম

প্রকাশিত: ১২:৪১ অপরাহ্ণ ,৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | আপডেট: ১০:৪৫ অপরাহ্ণ ,৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
অপহরণের ২০ দিন পর স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করলো পটুয়াখালী র‌্যাব

স্টাফ রিপোর্টার।। স্কুলছাত্রীকে তুলে নিয়ে আটকে রেখে ২০ দিন ধরে ধর্ষণ করেছে গৃহশিক্ষক। খবর পেয়ে অভিযান চালিয়ে ধর্ষণে সহায়তাকারী আকলিমা বেগমকে (৪৫) গ্রেফতার করেছে পটুয়াখালী র‌্যাব। সেই সঙ্গে স্কুলছাত্রীকে (১৩)কে উদ্ধার করা হয়েছে।

৯ সেপ্টেম্বর-১৯ সোমবার সকাল ১০.টার দিকে পটুয়াখালী শহরের সবুজবাগ এলাকায় অভিযান চালিয়ে স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার ও ধর্ষকের সহযোগী আকলিমা বেগমকে গ্রেফতার করা হয়। তবে অভিযানের বিষয়টি টের পেয়ে গৃহশিক্ষক মাসুদ পালিয়ে যায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে পটুয়াখালী র‌্যাব ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ রইছ উদ্দিন জনতার মেইলকে বলেন, ২০ আগষ্ট-১৯ সকালে বিদ্যালয়ের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হয় আবদুল হাই বিদ্যানিকেতনের অষ্টম শ্রেণির ওই শিক্ষার্থী। পথিমধ্যে স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করে নিয়ে যায় গৃহশিক্ষক মোঃ মাসুদ রানা শুভ (২৬) ও তার সহযোগী আকলিমা বেগম। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও স্কুলছাত্রীকে না পেয়ে ২১শে আগস্ট পটুয়াখালী সদর থানায় লিখিত অভিযোগ দেন ছাত্রীর মা। সেই সঙ্গে মেয়েকে উদ্ধারে র‌্যাবের সহযোগিতা কামনা করেন তিনি।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ রইছ উদ্দিন আরও বলেন, ওই ছাত্রীকে তুলে নিয়ে অজ্ঞাত স্থানে আটকে রেখে ২০ দিন ধরে ধর্ষণ করছে গৃহশিক্ষক মাসুদ রানা। ধর্ষণে সহযোগিতা করেছে আকলিমা বেগম। সোমবার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শহরের সবুজবাগের মনু ফকিরের বাড়ির ভাড়াটিয়া আকলিমা বেগমের বাসায় অভিযান চালিয়ে ছাত্রীকে উদ্ধার করা হয়েছে। সেই সঙ্গে আকলিমা বেগমকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় ধর্ষক মাসুদ রানা কৌশলে পালিয়ে যায়। পরে আকলিমা বেগমকে সদর থানায় হস্তান্তর করা হয়। পাশাপাশি স্কুলছাত্রীকে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

Comments

comments