আজ : রবিবার, ২৩শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এবারের ঈদুল আযহা’র সময় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে চলবে ২০টি ফেরি


প্রতিবেদক
জনতার মেইল.ডটকম

প্রকাশিত: ১১:১২ অপরাহ্ণ ,১ আগস্ট, ২০১৯ | আপডেট: ৯:১৪ অপরাহ্ণ ,৩ আগস্ট, ২০১৯
এবারের ঈদুল আযহা’র সময় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে চলবে ২০টি ফেরি

স্টাফ রিপোর্টার।। আসছে ঈদে দৌলতদিয়া ঘাটে ২২টি ফেরির প্রয়োজনের স্থলে ২০টি ফেরি চলাচল করবে বলে আমি নিশ্চিত হওয়াগেছে।

৩১ জুলাই-১৯ বুধবার বিকেলে গোয়ালন্দ উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত আসন্ন ঈদ-উল-আজহা উপলক্ষ্যে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে নির্বিঘ্ন যানবাহন ও যাত্রী পারাপার করতে প্রস্তুতিমূলক সভায় এ তথ্য জানান বিআইডব্লিউটিসি’র দৌলতদিয়া ঘাট ব্যবস্থাপক আবু আব্দুল্লাহ রনি।

তিনি বলেন, ‘বর্তমানে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ১৮টি ফেরি চলাচল করছে। ঈদে যানবাহন ও যাত্রীদের অতিরিক্ত চাপ সামাল দিতে দু’এক দিনের মধ্যে আরো দুইটি ফেরি বহরে যুক্ত হবে। আপাতত ২০টি ফেরি দিয়েই আগামী ঈদে যানবাহন ও যাত্রী পারাপার করা হবে।’ এসময় সভার সভাপতি ও গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুবায়েত হায়াত শিপলু বলেন- ‘বিভিন্ন সময় আমরা ঈদে অতিরিক্ত যাত্রী ও যানবাহনের চাপ সামাল দিতে অন্তত ২২টি ফেরি প্রয়োজন বলে জানিয়ে আসছি। দৌলতদিয়া ঘাটে মানুষের দূর্ভোগ দুর করতে ২২টি ফেরির ব্যবস্থা করার দরকার।’ বিআইডব্লিউটিসি’র ওই কর্মকর্তা এসময় বলেন, ‘আমি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের সাথে এ বিষয়ে কথা বলব। তবে আপাতত ঈদকালীন সময় ২০টি ফেরি চলাচল করবে বলে আমি নিশ্চিত হয়েছি।’

প্রস্তুতিসভায়, বিআইডব্লিউটিএ কর্মকর্তা ফরিদুল ইসলাম জানান- দৌলতদিয়ায় মোট ৬টি ফেরি ঘাটের মধ্যে ৫টি সচল আছে। আগামী ৩ দিনের মধ্যে ৬নং ফেরি ঘাটটিও সচল করা হবে। এছাড়া জরুরী প্রয়োজনে কাজ করার জন্য তাদের একটি টিম সার্বক্ষনিক ঘাটে অবস্থান করবে। তিনি আরো বলেন, ঈদের সময় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ২০টি লঞ্চ যাত্রী পারাপার করবে।

এ সভা থেকে দৌলতদিয়া নৌপুলিশের ওসিকে ফেরিতে জুয়া বন্ধসহ যাত্রীদের নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন, সড়ক ও জনপদ বিভাগকে ঘাট এলাকার সড়কের খানাখন্দ জরুরী মেরামত ও দৌলতদিয়া ইউনিয়ন পরিষদকে মহাসড়কের ৩ কিলোমিটার এলাকায় পর্যাপ্ত আলোর ব্যবস্থা করার নির্দেশ দেয়া হয়।

গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুবায়েত হায়াত শিপলুর সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবিএম নুরল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (ভুমি) আব্দুল্লাহ আল মামুন, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আসিফ মাহমুদ, বিআইডব্লিউটিসি’র দৌলতদিয়া ঘাট ব্যবস্থাপক আবু আব্দুল্লাহ রনি, দৌলতদিয়া ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আ. গণি মন্ডল, দৌলতদিয়া নৌ পুলিশের ওসি মো. লাবু মিয়াসহ ঘাট সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ও বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ।

Comments

comments